ধর্ষণ কান্ডে অভিযুক্তকে ২০ বছরের কারাদণ্ড

মালদা,১১ জুলাইঃ প্রতিবন্ধী যুবতীকে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তকে কুড়ি বছরের কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানার নির্দেশ দিল মালদা আদালত। বুধবার মালদা ফোর্থ কোর্টের অ্যাডিশনাল ডিস্ট্রিক এন্ড সেশন জজ ভবানী শংকর শর্মা এই সাজা ঘোষণা করেন।আদালতের এই রায়ে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছেন নির্যাতিতা ওই যুবতীর পরিবার। 


সরকারি আইনজীবী অমল কুমার দাস জানান, অভিযুক্ত যুবকের নাম মানিক মন্ডল।বাড়ি হবিবপুর থানার দক্ষিণ চাঁদপুর এলাকায়। ২০১৬ সালের ২২ মার্চ প্রতিবেশী প্রতিবন্ধী ওই যুবতীকে ফুঁসলিয়ে একটি পরিত্যক্ত জায়গায় নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে অভিযুক্ত মানিক মন্ডল। তার ওপর নৃশংস ভাবে শারীরিক অত্যাচার চালানো হয়।এরপরই নির্যাতিতা ওই যুবতীর পরিবারের পক্ষ থেকে হবিবপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।ঘটনার কয়েক দিনের মধ্যেই অভিযুক্ত মানিক মন্ডলকে গ্রেফতার করে হবিপুর থানার পুলিশ।

অভিযোগের ভিত্তিতে হবিবপুর থানার তদন্তকারী অফিসার বিপুল সরকার ৩৭৬/(২)(১)এম ধারায় মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেন।১১জন সাক্ষী নেওয়া হয়।বুধবার মালদা আদালতে অভিযুক্ত মানিক মণ্ডলের ২০ বছরের জেল এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয় এবং  অনাদায়ে আরও ৪ বছরের জেলের নির্দেশ দেয় আদালত। 


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site is protected by reCAPTCHA and the Google Privacy Policy and Terms of Service apply.