ব্যবসায়ীকে কোটি টাকার প্রতারণা, গ্রেফতার ৫

শিলিগুড়ি, ২৩ নভেম্বরঃ শিলিগুড়ির হার্ডওয়্যার ব্যবসায়ী শ্রী শ্যাম উদ্যোগের মালিক হর্ষ গোয়েঙ্কাকে কোটি টাকার প্রতারণার ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করল ডিটেকটিভ ডিপার্টমেন্ট(ডিডি)।ঘটনার মাস্টারমাউন্ড ব্যবসায়ীরই দুই কর্মচারী।


অভিযোগ,  শ্রী শ্যাম উদ্যোগের অ্যাকাউটেন্ট প্রসেনজিৎ দত্ত এবং কর্মচারী দীপক আগরওয়াল শিলিগুড়ির আরেক ব্যবসায়ী বাবুল রশিদের সঙ্গে ১০ কোটি টাকার একটি চুক্তি করে।আর সেই চুক্তির মধ্য দিয়ে মোটা অঙ্কের টাকা আত্মসাৎ করার পরিকল্পনা করে তারা।দুজন বাবুল রশিদকে ১০ কোটি টাকার পণ্য ৭-৮ কোটি টাকায় বিক্রি করে দেয়।এরপর কোম্পানির অ্যাকাউন্টে এই অর্ডারটির টাকা বকেয়া রয়েছে এমনটাই দেখানো হয়।একমাসের বেশি হয়ে গেলেও বকেয়া টাকা না মেলায় ব্যবসায়ী হর্ষ গোয়েঙ্কা ব্যবসায়ী বাবুল রশিদকে এই বিষয়ে জিজ্ঞেস করে।সেইসময়ই গোটা বিষয়টি জানতে পারেন তিনি।এরপরই গত ১২ নভেম্বর পানিট্যাঙ্কি ফাঁড়িতে অ্যাকাউটেন্ট প্রসেনজিৎ দত্ত এবং দীপক আগরওয়ালের নামে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগের ভিত্তিতে মামলাটি ডিডি’র কাছে যায়।গত ১৫ নভেম্বর প্রসেনজিৎ দত্ত এবং দীপক আগরওয়ালকে গ্রেফতার করে ৭ দিনের রিমান্ডে নেয় ডিডি।ধৃত দুজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে মসজিদুল ইসলাম এবং অমিত চৌধুরীর নাম সামনে আসে।তাদেরও গ্রেফতার করে পুলিশ রিমান্ডে নেওয়া হয়।এরপর ব্যবসায়ী বাবুল রশিদকেও বিহার থেকে গ্রেফতার করে ডিডি।ধৃত ৫ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে এখনও অবধি ২৭ টন লোহা উদ্ধার হয়েছে।


আজ ধৃতদের শিলিগুড়ি আদালতে পেশ ফের রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।ডিডি সূত্রে খবর, এই প্রতারণার ঘটনা দীর্ঘদিন ধরে চলছিল।এই ঘটনায় আরও কেউ জড়িয়ে থাকতে পারে।এই কারণে ধৃতদের ফের একবার রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।   

এই বিষয়ে শিলিগুড়ির পুলিশ কমিশনার অখিলেশ চতুর্বেদী জানান, মামলার তদন্ত চলছে।টাকা উদ্ধারের চেষ্টাও করছে পুলিশ।   

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site is protected by reCAPTCHA and the Google Privacy Policy and Terms of Service apply.