ছেলের বিরুদ্ধে গলা টিপে ধরার অভিযোগ, বাড়ি ছাড়া বৃদ্ধা ফিরলেন ঘরে

শিলিগুড়ি, ৬ আগস্টঃ পারিবারিক সমস্যা।তাঁর জেরে বৃদ্ধা মা ছিলেন ঘরছাড়া।অসুস্থ অবস্থায় পড়ে ছিলেন রাস্তায়।শেষে বৃদ্ধাকে দেখতে পেয়ে শিলিগুড়িতে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।অবশেষে ঘরে ফিরলেন শিলিগুড়ির হাকিমপাড়ার বাসিন্দা মুকুল কর্মকার।


গত সোমবার ছেলে তাঁর গলা টিপে ধরেন বলে অভিযোগ করেছেন বৃদ্ধা। পরিবারে বহুদিন ধরে সমস্যা চলছে বলেও জানান।এরপরই বাড়ির বাইরে রাস্তায় ছিলেন তিনি।খবর পেয়ে বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে দার্জিলিং জেলা লিগ্যাল অ্যাইড ফোরাম ও কিছু স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা।অসুস্থ থাকায় তাঁকে শিলিগুড়ি জেলা হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।এরপর বৃদ্ধার ছেলে ও ছেলের বউ যোগাযোগ করে লিগ্যাল অ্যাইড ফোরামের সদস্যদের সঙ্গে।শুক্রবার অবশেষে মা’কে বাড়িতে সযত্নে রাখবেন বলে লিখিত দিয়ে বাড়ি নিয়ে যান।এদিন দার্জিলিং জেলা লিগ্যাল অ্যাইড ফোরাম, জেলা প্রশাসনের প্রটেকশন অফিসার ও পারিবারিক সহায়তা কেন্দ্রের প্রতিনিধিদের লিখিত দেন।

দার্জিলিং জেলা লিগ্যাল অ্যাইড ফোরামের কর্মকর্তা অমিত সরকার জানান, বৃদ্ধাকে আমরা রাস্তা থেকে উদ্ধার করে শিলিগুড়ি জেলা হাসপাতালে ভর্তি করি।সেখানেই তিনি ভর্তি ছিলেন।পরিবারের সদস্যরা আসলে তাঁদেরও বোঝানো হয়।


অন্যদিকে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর বৃদ্ধার কথা, আমি শান্তিতে থাকতে চাই।তবে বৃদ্ধার ছেলে জানিয়েছেন, তেমন কিছুই হয়নি।মা নিজে থেকে বাড়ি থেকে বেরিয়ে গিয়েছিল।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

This site is protected by reCAPTCHA and the Google Privacy Policy and Terms of Service apply.